Monday, October 3, 2022
Homeকবিতাঅণুক্ষণে সারাক্ষণ

অণুক্ষণে সারাক্ষণ

কাজী খলিলুর রহমান

আমি যে অভাগী জগতের
কে আছে মোর ,
অন্তিম শয়নে কিচ্ছা কাহনের
প্রবোধে কাটে ঘোর ।
পাষাণ হৃদয় মোর চলছে কেঁদে মায়ের তরে,
বেধেছো এ-কোন বাঁধনে অনুরাগে ভবের পরে।

মনে পড়ে তাই ক্ষণে, অণুক্ষণে,
তব মুখখানি,
বক্ষ ভিজছে অশ্রুসিক্ত নয়নে
করুন চাহনি।

পারি না ভুলিতে তব মুখের কথা
লুকিয়েছ যথাতথা,
সইবো কেমনে আমি শোকের ব্যাথা
হৃদয়ে করুন গাঁথা ।

পালিয়ে গিয়েছি কোথা না বলে
দ্বারে বসেছিলে ,
নিশিভর হাতে লন্ঠন জ্বেলে
আসবে মাতৃকোলে।

কি জানি কখন আসবে খোকা
ভাবছি শুধুই বোকা,
কেউ বলবেনা আর দিসনে ধোঁকা
মুখখানি তোর রোগা ।

সন্ধ্যা আঁধারে ধীরে ধীরে ফুরালো মায়ের মুখ ,
উথলে উঠেছে ব্যথা গুলি ধারালো যন্ত্রনায় বুক ।

কোথায় চলে গেলে! ছেড়ে মোর
খোলো না দুটি আঁখি,
একাকী ফেলে পৃথিবীর মায়া ডোর
আনমনে ছবি আঁকি ।

জগত সংসারে পুচ্ছ দিয়েছ সবই পর ,
তুমিতো জননী বেছে নিয়েছ আপন ঘর।

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular

Recent Comments